আস্ক টু আন্স প্লাটফর্মে আপনাকে স্বাগতম, সমস্যার সমাধান খুঁজতে প্রশ্ন করুন।।
0 টি ভোট
42 বার প্রদর্শিত
"পড়াশোনা" বিভাগে করেছেন (573 পয়েন্ট)

  • সক্ষমকারী প্রক্রিয়া কী?
  • পেশাদার সমাজকর্মীর ভূমিকা ব্যাখ্যা করো।

1 উত্তর

0 টি ভোট
করেছেন (573 পয়েন্ট)

উদ্দীপকঃ-

=> মোহন একটি সমাজ উন্নয়নমূলক সংস্থায় কর্মরত। তার সংস্থাটি গ্রামীণ ভূমিহীনদের বৃত্তিমূলক প্রশিক্ষণ দেয়। নারী ও শিশু নির্যাতন রোধে সচেতনতামূলক কার্যক্রম পরিচালনা করে। আবার নারী ও শিশু নির্যাতনের কারণ অনুসন্ধান করে তা মোকাবিলার উপায় উদ্ভাবনে নিয়োজিত থাকে।

প্রশ্ন- 

ক. সক্ষমকারী প্রক্রিয়া কী?

খ. পেশাদার সমাজকর্মীর ভূমিকা ব্যাখ্যা করো।

গ. উদ্দীপকে সমাজকর্মের পরিধিভুক্ত যেসব কার্যক্রমের কথা বলা হয়েছে-তা বর্ণনা করো।

ঘ. 'মোহনের সংস্থার কাজের মাধ্যমে সমাজকর্মের পরিধির সামান্যই প্রতিফলিত হয়েছে'-উক্তিটি বিশ্লেষণ করো।


প্রশ্নের উত্তর:-


ক) সমস্যাগ্রস্ত ব্যক্তিকে সমস্যা মোকাবিলায় দক্ষ করে তোলার প্রক্রিয়াকে সক্ষমকারী প্রক্রিয়া বলা হয়।


খ) সামাজিক সমস্যা সমাধানে একজন পেশাদার সমাজকর্মীর ভূমিকা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

১৯৬০ সালে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে অনুষ্ঠিত জাতীয় সমাজকর্ম সংঘের প্রতিনিধিদের সম্মেলনে পেশাদার সমাজকর্মীদের তিনটি মৌলিক ভূমিকা পালনের কথা বলা হয়। মানবিক ও গণতান্ত্রিক আদর্শের ভিত্তিতে মানবজাতির কল্যাণ সাধন করা এর অন্যতম। এছাড়া সমাজকর্মের পেশাগত জ্ঞানের বাস্তবায়ন এবং জাতি-ধর্ম-বর্ণ-শ্রেণি নির্বিশেষে সব স্তরের মানুষের উন্নয়ন সাধনের জন্য সম্পদের সদ্ব্যবহারের নিশ্চয়তা বিধান করাও পেশাদার সমাজকর্মীর ভূমিকার মধ্যে পড়ে।


গ) উদ্দীপকের মোহনের উন্নয়নমূলক সংস্থা গ্রামের ভূমিহীন জনগণকে বৃত্তিমূলক প্রশিক্ষণ দেওয়ার পাশাপাশি নারী ও শিশু নির্যাতন রোধে সচেতনতামূলক কার্যক্রম চালায়। এই কার্যক্রমগুলো সমাজকর্মের পরিধিভুক্ত।সমাজের সকল শ্রেণির সমস্যাগ্রস্ত মানুষের সমস্যা মোকাবিলায় সমাজকর্ম ভূমিকা রাখে। সেইসাথে তাদের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে প্রয়োজনীয় সহায়তা প্রদানের চেষ্টা চালায়। বাংলাদেশের মতো উন্নয়নশীল দেশে জনসংখ্যার একটি বড় অংশ গ্রামে বাস করে। তাই এদেরকে উন্নয়নের মূল স্রোতধারায় অন্তর্ভুক্ত করার জন্য সমাজকর্ম গ্রামীণ সমাজসেবা কর্মসূচি পরিচালনা করে।সমাজকর্ম তার নিজ পরিধির আওতায় দরিদ্র শ্রেণির জন্য বৃত্তিমূলক ও আয়বৃদ্ধিমূলক কর্মের ব্যবস্থা করে। এর পাশাপাশি সমস্যা মোকাবিলায় সচেতনতামূলক কার্যক্রম পরিচালনা করে সক্ষমতা বৃদ্ধিতে ভূমিকা রাখে। এছাড়া ভবিষ্যৎ বিপর্যয় মোকাবিলা করার লক্ষ্যে দুস্থ মহিলাদের বৃত্তিমূলক শিক্ষা, নারী ও শিশু নির্যাতন প্রতিরোধে গণসচেতনতা সৃষ্টি করে থাকে সমাজকর্ম। উদ্দীপকে মোহনের সংগঠনের কাজে এসবেরই প্রতিফলন পাওয়া যায়।


ঘ) মোহনের সংস্থার কাজের মাধ্যমে সমাজকর্মের পরিধির সামান্যই প্রতিফলিত হয়েছে-উক্তিটি বিশ্লেষণে দেখা যায়, মোহন যেখানে কাজ করেন তা একটি উন্নয়নমূলক সংস্থা। এটি সমাজকর্মের পরিধির একটি দিক অর্থাৎ গ্রামীণ সমাজসেবা ও সামাজিক কার্যক্রম নিয়ে কাজ করছে। কিন্তু সমাজকর্মের পরিধি আরও অনেক ব্যাপক।

সমাজকর্ম মূলত জনসংখ্যা বৃদ্ধি, বেকারত্ব, পুষ্টিহীনতা, প্রবীণদের সমস্যা প্রভৃতির মতো মৌলিক সমস্যা নিয়ে কাজ করে। তবে পাশাপাশি স্বাভাবিক জীবনযাত্রার ক্ষেত্রে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করে এমন অন্যান্য সমস্যা মোকাবিলাতেও এটি ভূমিকা রাখে। পিছিয়ে পড়া জনগোষ্ঠীর জন্য উন্নয়নমূলক বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনা করে সমাজকর্ম। বিভিন্ন সামাজিক সমস্যা (যেমন- নারী নির্যাতন, কিশোর অপরাধ, যৌতুক,বাল্যবিবাহ প্রভৃতি) মোকাবিলায় প্রতিরোধমূলক কার্যক্রম পরিচালনাও সমাজকর্মের আওতায় পড়ে। সুতরাং উদ্দীপকে মোহনের সংস্থার যে সমস্ত কাজের কথা উল্লেখ করা হয়েছে তা সমাজকর্মের পরিধির সামান্য অংশকেই তুলে ধরে।উদ্দীপকের উন্নয়নমূলক সংস্থাটি গ্রামীণ ভূমিহীন মানুষকে বৃত্তিমূলক প্রশিক্ষণ দেয়, যা সমাজকর্মের পরিধিভুক্ত গ্রামীণ সমাজসেবার মধ্যে পড়ে আবার নারী ও শিশু নির্যাতন প্রতিরোধ, মোকাবিলা ও এর বিরুদ্ধে জনসচেতনতা সৃষ্টিতে সংস্থাটি কাজ করে। অন্যদিকে সমাজকর্ম কিশোর অপরাধ, মাদকাসক্তি, প্রবীণ সমস্যার মতো কার্যক্রম নিয়েও কাজ করে।

উপর্যুক্ত আলোচনা থেকে তাই বলা যায়, মোহনের সংস্থার কাজগুলো সমাজকর্মের পরিধিভুক্ত হলেও তা এর সামগ্রিক রূপ নয়। বরং সংস্থাটির কাজের মধ্যে সমাজকর্মের ব্যাপক ও বিস্তৃত পরিধির খুব সামান্য অংশই প্রতিফলিত হয়েছে।



উদ্দীপকঃ-

=> মি. বার্টল্যান্ড ক্লাসে শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে যে বিষয় নিয়ে আলোচনা করলেন তাতে বোঝা গেল বিষয়টি পদ্ধতিগত সমাধান প্রক্রিয়া, সামগ্রিক দৃষ্টিভঙ্গি পোষণ, সাহায্যকারী ও সক্ষমকারী পেশা, কর্মী-সাহায্যার্থী সম্পর্ক বজায় রেখে কার্যক্রম পরিচালনা করে। তিনি বললেন, "এটা হলো এমন কতগুলো উপাদানের সম্পর্ক, যাদের সমবেত অবদান এ বিষয়টিকে অন্যান্য যেকোনো পেশা হতে স্বতন্ত্র মর্যাদা দান করেছে।"


 প্রশ্ন-

ক. কে সমাজকর্মকে কলা, বিজ্ঞান ও পেশা হিসেবে আখ্যায়িত করেছেন?

খ. সমাজকর্ম শিক্ষার কয়টি অংশ ও কী কী?

 গ. মি. বার্টল্যান্ড কোন বিষয় নিয়ে আলোচনা করেছিলে? উদ্দীপক আঙ্গিকে ব্যাখ্যা কর।

ঘ. "এটা হলো এমন কতগুলো উপাদানের সম্পর্ক, যাদের সমবেতন অবদান এ বিষয়টিকে অন্যান্য যেকোনো পেশা হতে স্বতন্ত্র মর্যাদা দান করেছে"- উক্তিটি উদ্দীপক ও পাঠ্যবইয়ের আলোকে বিশ্লেষণ কর।


প্রশ্নের উত্তর:-


ক) রেক্স এ. স্পিডমোর ও মিল্টন জি, থ্যাকারি সমাজকর্মকে কলা বিজ্ঞান ও পেশা হিসেবে আখ্যায়িত করেছেন।


খ) সমাজকর্ম শিক্ষার ৩টি অংশ রয়েছে।

বৈজ্ঞানিক ভিত্তিতে সমাজকর্ম শিক্ষার এই শ্রেণি বিভাগ করা হয়। এক্ষেত্রে প্রথমটি হলো তত্ত্বীয় জ্ঞান। দ্বিতীয়টি হলো অনুকল্প নির্ভর জ্ঞান যা পরবর্তীতে তাত্ত্বিক জ্ঞানে পরিণত হয়। তৃতীয়টি হলো অনুমান নির্ভর জ্ঞান' এ জ্ঞান প্রথমে অনুকল্প নির্ভর জ্ঞান এবং পরে তাত্ত্বিক জ্ঞানে পরিণত হয়।


গ) মি. বার্টল্যান্ড সমাজকর্ম নিয়ে আলোচনা করছিলেন।

সমাজকর্ম হলো বৈজ্ঞানিক পদ্ধতি নির্ভর সাহায্যকারী পেশা। এটি বিভিন্ন পদ্ধতি ও কৌশল ব্যবহার করে সমস্যাগ্রস্ত ব্যক্তি, দল, সমষ্টির বিভিন্ন সমস্যা মোকাবিলায় সহায়তা করে। এক্ষেত্রে সমাজকর্ম পেশায় নিয়োজিত ব্যক্তি ও সাহায্যার্থীর মধ্যে পেশাগত সম্পর্ক বজায় রাখা হয়। সমাজকর্ম সমস্যাগ্রস্ত ব্যক্তিক এমনভাবে সাহায্য করে যাতে তারা নিজ ক্ষমতা ও সম্পদের যথাযথ ব্যবহারের মাধ্যমে সমস্যা মোকাবিলায় সক্ষম হয়। এজন্য সমাজকর্মকে সক্ষমকারী পেশাও বলা হয়। উদ্দীপকে এ বিষয়টিকেই ইঙ্গিত করা হয়েছে।উদ্দীপকের মি. বার্টল্যান্ড এমন একটি বিষয় সম্পর্কে আলোচনা করেছেন যা পদ্ধতিগত সমস্যা সমাধান প্রক্রিয়া, সামগ্রিক দৃষ্টিভঙ্গি পোষণ, সাহায্য ও সক্ষমকারী পেশা, কর্মী-সাহায্যার্থী সম্পর্ক বজায় রেখে কার্যক্রম পরিচালনা করে। মি, বার্টল্যান্ডের আলোচিত এই বিষয়টি উপরে বর্ণিত সমাজকর্মের সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ। তাই বলা যায়, মি. বার্টল্যান্ড সমাজকর্ম সম্পর্কে আলোচনা করেছিলেন।


ঘ) সমাজকর্ম পেশা এমন কতগুলো স্বকীয় বৈশিষ্ট্যে বৈশিষ্ট্যমণ্ডিত যা এটিকে অন্য যেকোনো পেশা হতে আলাদা মর্যাদা দান করেছে। অন্যান্য পেশার মতো আধুনিক বিশ্বে সমাজকর্ম একটি স্বতন্ত্র পেশা হিসেবে সমাদৃত। তবে মানবকল্যাণমুখী পেশা হিসেবে আর দশটি পেশা থেকে এটি সম্পূর্ণ আলাদা। কেননা, সমাজকর্মই একমাত্র পেশা যা সমাজে বসবাসরত ব্যক্তি, দল ও সমষ্টিকে বিভিন্ন ব্যক্তিগত, দলীয়, সামাজিক, অর্থনৈতিক, মনস্তাত্ত্বিক সমস্যা মোকাবিলায় সহায়তা করে। এর পাশাপাশি সাহায্যার্থীকে প্রত্যক্ষভাবে স্বাবলম্বী বা আত্মনির্ভরশীল করে গড়ে তোলে। এটি একটি সুনির্দিষ্ট মূল্যবোধ নির্দেশিত পেশা। এর অনন্য বৈশিষ্ট্য হলো একমাত্র এই পেশাটিই সমাজের উন্নতির জন্য প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। আবার, অন্যান্য পেশা যেখানে মানুষের সামাজিক, অর্থনৈতিক, শারীরিক প্রয়োজন ও সমস্যার ওপর গুরুত্বারোপ করে সেখানে সমাজকর্ম মানুষের ঐ সকল দিকসহ মনো-সামাজিক সমস্যা সমাধান ও সমাজে সুষ্ঠুভাবে সামঞ্জস্য বিধানে সহায়তা করে। উদ্দীপকের মি. বার্টল্যান্ড ক্লাসে শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে একটি বিষয় সম্পর্কে বলেন, এটি পদ্ধতিগত সমাধান প্রক্রিয়া, সামগ্রিক দৃষ্টিভঙ্গি পোষণ সাহায্যকারী ও সক্ষমকারী পেশা এবং এটি কর্মী-সাহায্যার্থী সম্পর্ক বজায় রেখে কার্যক্রম পরিচালনা করে। এতে বোঝা যায় পেশাটি হলো সমাজকর্ম পেশা যার উপরে বর্ণিত স্বতন্ত্র বৈশিষ্ট্য বিদ্যমান। আলোচনার প্রেক্ষিতে তাই বলা যায়, কিছু স্বতন্ত্র ও স্বকীয় বৈশিষ্ট্য উদ্দীপকে নির্দেশিত সমাজকর্ম পেশাকে অন্যান্য পেশা থেকে আলাদা মর্যাদা দিয়েছে।

Ask2Ans এ সুস্বাগতম, যেখানে আপনি প্রশ্ন করতে পারবেন এবং গোষ্ঠীর অন্যান্য সদস্যদের নিকট থেকে উত্তর পেতে পারবেন।

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

0 টি ভোট
1 উত্তর 103 বার প্রদর্শিত
0 টি ভোট
1 উত্তর 41 বার প্রদর্শিত
0 টি ভোট
1 উত্তর 27 বার প্রদর্শিত
16 জানুয়ারি "ইসলাম শিক্ষা" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Admin (513 পয়েন্ট)
0 টি ভোট
1 উত্তর 38 বার প্রদর্শিত
14 জানুয়ারি "ব্যবসা-বাণিজ্য" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Admin (513 পয়েন্ট)
0 টি ভোট
1 উত্তর 92 বার প্রদর্শিত
...